+

ইসলামে কদম্বুচির (পাঁ-ছুঁয়ে সালামের)বিধান এবং না করার কুফল। পর্ব-১

সরেজমিনবার্তা | নিউজ টি ১১ দিন ১৪ ঘন্টা ২০ সেকেন্ড আগে আপলোড হয়েছে। 830
...

মাওলানা নুরুল আবছার ভূঁইয়া 

ওয়াযি ইবনে আমির (রাঃ) বলেন, আমি একদা রাসূলে করীম (দঃ) -এর খেদমতে গিয়ে হাজির হইলাম । আমাকে বলা হইল, ইনিই হইতেছেন আল্লাহ্‌র রাসূল । আমরা তখন তাঁহার হস্তদ্বয় ও পদদ্বয় ধরিয়া চুমু খাইলাম।

১.তিরমিযী শরীফঃ- ২৭৩৩ । 

২.সুনানু ইবনে মাজাহঃ- ৩৭০৫ ।  

লক্ষ্যনীয়ঃ যে,এখন আর আগের মত ঈদগাহে যাওয়ার সময় সন্তানেরা মা বাবাকে পাঁ-চুয়ে সালাম করেনা, তাই সন্তানের মাথায় হাত বুলিয়ে দোয়া করার মত সুযোগ মা বাবা রাও হারিয়ে পেলেছে, একঠিন মুহাব্বাত ও প্রেমময় দৃশ্য চোখে পড়ার ঘটনাও বিরল। ঈদের নামাজ শেষে অধিকাংশ সন্তানেরা বাবার কদম্বুচি তো দূরের কথা মুসাফাহ,কুলাকুলি পর্যন্ত করেনা,ভাই ভাইয়ে সাথে মুসাফাহ করতে দেখা যায়না,সন্তান ঈদগাহ থেকে বাড়িতে গিয়ে মাকে সালাম করে না, অথচ আমাদের শৈশব কতইনা সুন্দর ছিল। শাশুড়ীর কদম্বুচি করে বউ বাপের বাড়ি গেছে, এখন  পুত্রবধুরা শাশুড়ীকে না বলেই বাপের বাড়ি চলে যায়,নুম্নতম সম্মান টুকু পর্যন্ত করতে ভূলে যাচ্ছে তারা, কেননা যে অন্তরে আল্লাহর জিকির (তথা রাসূলে পাঁকের প্রতি ভালোবাসা,উনার সুন্নাহকে আঁকড়ে না ধরবে,দরুদ সালাম,মিলাদ কিয়াম  এমন কি হুজুরের প্রতিটি সুন্নাতকে বড় মনে না করবে ) না থাকবে ঐ অন্তর সর্বদা অশান্ত থাকবে,ঐ ব্যক্তির তাকওয়া কমে যায়,অতন্তরে মায়া মমতা, মানবতা,মনুষ্যত্ব বলতে কিছুই থাকেনা,বিবেকহীন হয়ে পড়ে । ফলে তার দ্বারা সকল প্রকারের গুনাহের কাজ সহজেই সংঘটিত হবে। আদব যেথা হতে বিদায় নিচ্ছে সেথায় হিংসা,বিদ্বেষ,নিন্দা ও ঘৃণার জম্ম হচ্ছে,অতএব কারণেঃ আজ,সন্তান মাকে কুপিয়ে হত্যা করার মত নির্মম ও জঘণ্যতম ঘৃণিত আচর করা সম্ভব হচ্ছে । আজ অধিকাংশ  পরিবারে ভালোবাসার অভাব সৃষ্টি হয়েছে। প্রিয় পাঠক প্রসঙ্গত কারণে বলতে হচ্ছে যে দিন থেকে ওয়াহাবী,লা মাজহাবী(বাতেল ফেরকার)ফেৎনাবাজ আলেম গণ কদম্বুচি ও চুম্বন এগুলোর বিরুদ্ধে  যত্র তত্র ফতোয়া দেওয়া আরম্ব করেছে সে দিন থেকে আমাদের ঈমানের ধস নামতে শুরু হয়েছে,এর জন্য ঐ ফাসাদ সৃষ্টিকারীরাই দাই যারা স্থান,কাল, পাত্র না ভেবে ফতোয়া দিয়ে বসে। 

সহীহ্ ফতোয়ার কিতাবে এসেছে 

যে,সম্মানের অধিকারী , তাঁর কদমবুছী করার অনুমতি রয়েছে!"
[ফতোয়ায়ে মাহমুদিয়া ১ম খন্ড ১৭৫ পৃষ্ঠা]

ফতোয়ায়ে আলমগীরীর কিতাবুল কারাহিয়াতের মালাকাতিল মুলুক অধ্যায়ে আরও লিপিবদ্ধ আছে

চুম্বন পাঁচ প্রকারঃ

আশীর্বাদসূচক চুম্বন, যেমন বাবা ছেলেকে চুমু দেয়; সাক্ষাৎকারের চুম্বন, যেমন কতেক মুসলমান কতেক মুসলমানকে চুমু দেয়; স্নেহের চুম্বন, যেমন ছেলে মা-বাবাকে দেয়; বন্ধুত্বের চুম্বন, যেমন এক বন্ধু অপর বন্ধুকে চুমু দেয়; কামভাবের চুম্বন, যেমন স্বামী স্ত্রীকে দেয়। কেউ কেউ ধার্মিকতার চুম্বন অর্থাৎ হাজরে আসওয়াদের চুম্বনকে এর সাথে যোগ করেছেন।

দুররুল মুখতারের ৫ম খন্ড কিতাবুল কারাহিয়াতের শেষ অধ্যায় মুসাফাহা পরিচ্ছেদে বর্ণিত আছে, আলিম ও ন্যায়পরায়ণ বাদশাহের হাতে চুমু দেয়ায় কোন ক্ষতি নেই। 

আল্লাহ পাঁক সকলের হেফাজত করুুন, আমিন।

...
Md. Noorul Abchar Vnuiya(SJB:E564)
Mobile : 01863353161

সম্পাদক ও প্রকাশক
মোহাম্মদ বেলাল হোছাইন ভূঁইয়া
01731 80 80 79
01798 62 56 66

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদক
আল মামুন
01868974512

প্রধান কার্যালয় : লেভেল# ৮বি, ফরচুন শপিং মল, মৌচাক, মালিবাগ, ঢাকা - ১২১৯ | ই-মেইল: news.sorejomin@gmail.com , thana.sorejomin@gmail.com

...

©copyright 2013 All Rights Reserved By সরেজমিনবার্তা

Family LAB Hospital
সর্বশেষ সংবাদ