১৫ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং | ২রা পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ৩:১৭

শুধু ক্লোজ নয়, এ এস আই কামরুলের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চায় সূত্রাপুরবাসী

স্টাফ রিপোর্টার :
পুরান ঢাকার সুত্রাপুর থানার এ এস আই কামরুল। স্থানীয় সাধারন নাগরীক ও ব্যবসায়ীর নিকট এক আতংকের নাম। তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় এলাকার সাধারন নাগরিক ও ব্যবসায়ীদের হয়রানীর অভিযোগ পাওয়া যায়। কিন্তু তার ভয়ে অতীতে কেউ কোনো অভিযোগ করতে পারে নাই, কারন সে সকলকে মিথ্যা মামলায় জড়ানোর ভয় ভীতি প্রদর্শন করতেন। বিগত ০৫/১২/২০১৮ইং তারিখে, আনুমানিক রাত ৮:৩০ ঘটিকার সময় সুত্রাপুর বাজার সংলগ্ন সুএাপুর জামে মসজিদের নিকট ছোট্ট একটি বিষয়কে কেন্দ্র করে ফার্নিচার ব্যবসায়ি ফজলুল করিম রাজনকে প্রকাশ্যে তার সাথের পুলিশ বাহিনী সহ একত্রে মারধর করেন। এতে ঐ ব্যবসায়ীর মুখের বিভিন্ন স্থানে যখম হয় এবং নাকের হাড় ভেঙ্গে প্রচুর রক্ত ক্ষরন হয়।পরবর্তীতে স্থানীয় লোকেরা একত্রিত হয়ে ঐ ব্যক্তিকে থানায় নিয়ে যান। স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গের হস্তক্ষেপে তাহাকে থানা হইতে উদ্ধার করিয়া ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়। সুত্রাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কে,এম, আশরাফ উদ্দিন বিষয়টির সত্যতা স্বীকার করেন এবং সংশ্লিষ্ট এ,এস,আইকে ক্লোজ করার কথা জানান। একটি সুশৃঙ্খল বাহিনীর সদস্যের কাছ থেকে এমন আচরন মেনে নিতে পারছেনা এলাকার জনগন। গুটি কয়েক সদস্যদের এহেন কর্মকান্ডে কলুষিত হচ্ছে সম্পূর্ণ বাহিনীর ভাবমূর্তি । এ এস আই কামরুল এর নিকট বিভিন্ন সময় বিভিন্নভাবে নির্যাতিত লোকজন তাহার কঠোর শাস্তি দাবী করেন। গত ০৭/১২/১৮ইং তারিখ সন্ধ্যা ৬ ঘটিকায় মানববন্ধন করেন এলাকার সর্বস্তরের জনগন। দোষী এ এস আই কামরুলকে চাকরি হইতে বরখাস্ত করে দৃস্টান্তমুলক শাস্তি দাবী করেছেন এলাকাবাসী।

প্রকাশ :  ডিসেম্বর ৮, ২০১৮ ২:৩৩ অপরাহ্ণ