১৫ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং | ২রা পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ২:২০

হাটহাজারীতে নকল পাখা তৈরীর কারখানায় ও হালদা নদীতে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান

মো.আলাউদ্দীন,হাটহাজারীঃ

হাটহাজারীতে নকল বৈদ্যুতিক পাখা তৈরীর অবৈধ কারখানার সন্ধান পাওয়া গেছে। বৃহস্পতিবার(২৫ অক্টোবর)উপজেলার মধ্যম কুয়াইশ এলাকার একটি বাড়িতে

উপজেলা নির্বাহী অফিসার(ইউএনও)রুহুল আমিনের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান চালিয়ে কারখানাটির সন্ধান পান।

সূত্রে জানা যায়,গোপন সংবাদের ভিক্তিতে ঐ বাড়ীতে অভিযান চালিয়ে নাবিল,পপুলার,জিইসি,স্টার,শাহপরান,কেআরবি ইত্যাদি ব্রান্ডের নকল বৈদ্যুতিক পাখা তৈরির সময় আকতার হোসেন নামের এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়। আটককৃত মো.আকতার হোসেন ইউনিয়নের উত্তর বুড়িশ্চরস্থ আকতার কোঃ বাড়ীর মৃত আবদুল জলিলের পুত্র বলে জানা গেছে। প্রায় আড়াই বছর ধরে সে ঐ বাড়ীর দ্বিতীয় ও তৃতীয় তলার অবৈধ কারখানায় নকল পাখা তৈরী করে সুদৃশ্য কার্টনে ভরে তা পাইকারি বাজারে সরবরাহ করে আসছিল।
অপরদিকে একইদিন ইউএনও মোহাম্মদ রুহুল আমিনের নেতৃত্বে এশিয়ার প্রাকৃতিক মৎস প্রজনন ক্ষেত্র হালদা নদীর নজুমিয়াহাট এলাকা থেকে নাজিরহাট পর্যন্ত নদীর বিভিন্ন অংশে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে প্রায় ২০০০ মিটার ঘেরা জাল,৮০০০ ঘটফুট বালি এবং একটি ট্রাক জব্দ করা হয়েছে । তবে এসময় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। পরে জব্দ করা অবৈধ জাল আগুনে পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়েছে। এ সময় উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা নিয়াজ মোর্শেদ সাথে ছিলেন।
হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রুহুল আমিন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে সাংবাদিকদের জানান, কারখানার কোনো বৈধ কাগজপত্র দেখাতে না পারায় আকতার হোসেন নামের এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে এবং ২ লাখ টাকা জরিমানা করে কারখানার সব মালামাল জব্দ করা হয়েছে।
প্রকাশ :  অক্টোবর ২৫, ২০১৮ ৬:৫৫ অপরাহ্ণ