২০শে অক্টোবর, ২০১৮ ইং | ৬ই কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ২:৫৯

‘মকবুলের হাতে নৌকা নিরাপদ নয়, নতুন মাঝিকে মনোনয়ন দেয়ার দাবি’

পাবনা ও চাটমোহর প্রতিনিধি:

পাবনা-৩ আসনের আওয়ামীলীগের বর্তমান সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মকবুল হোসেনের বিরুদ্ধে এক মঞ্চে দাঁড়ালেন মনোনয়ন প্রত্যাশী ১০ জন আওয়ামীলীগ নেতা। বর্তমান সরকারের উন্নয়ন অগ্রগতির দশ বছর পূর্তি উপলক্ষে সোমবার বিকেলে চাটমোহর বালুচর খেলার মাঠে উপজেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে আয়োজিত জনসভায় এক মঞ্চে দাঁড়ান তারা।

জনসভায় মনোনয়ন প্রত্যাশী আওয়ামীলীগ নেতারা বর্তমান এমপির বিরুদ্ধে নানা অনিয়ম-স্বজনপ্রীতির অভিযোগ তুলে বলেন, বর্তমান সংসদ সদস্য মকবুল হোসেন আওয়ামীলীগ থেকে দুইবার নির্বাচিত হলেও দলের ত্যাগী নেতাকর্মীদের মুল্যায়ন করেননি। তার কারণে পাবনা-৩ আসনে আওয়ামীলীগে বিভক্তির সৃষ্টি হয়েছে। তার হাতে নৌকা নিরাপদ নয়। শেখ হাসিনার উন্নয়ন পাবনা-৩ আসনে প্রশ্নবিদ্ধ করা হয়েছে। তিন উপজেলার মানুষকে শেখ হাসিনার নেতৃত্বের বাইরে নেয়ার চেষ্টা করেছিলেন তিনি। তাই বর্তমান এমপি মকবুল হোসেনকে পরিবর্তন করে নতুন কোনো প্রার্থীকে নৌকার মাঝি হিসেবে মনোনয়ন দিতে দলীয় প্রধানের কাছে দাবি জানান নেতারা।

বক্তারা বলেন, এই জনসমুদ্র প্রমাণ করে জনগন বর্তমান এমপিমকবুলকে চায় না। নৌকার মাঝি হিসেবে তিনি যোগ্য নন। মকবুল হোসেন নিজে দেউলিয়া হয়েছেন, সেইসাথে আওয়ামীলীগকে দেউলিয়া করেছেন। তাকে আর পাবনা-৩ আসনে নৌকার প্রার্থী হিসেবে দেখতে চায় না সাধারণ মানুষ। ত্যাগী নেতাকর্মীদের তিনি ধ্বংস করে দিয়েছেন। তাই দলীয় নেতাকর্মীদের কলঙ্কমুক্ত করতে নতুন কাউকে সুযোগ দেয়ার দাবি জানান তারা। মকবুল হোসেনকে বাদ দিয়ে অন্য যে কোনো প্রার্থীকে মনোনয়ন দিলে সবাই একসাথে কাজ করে নৌকাকে বিজয়ী করবে বলে প্রত্যয় ব্যক্ত করেন নেতারা।

চাটমোহর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন সাখোর সভাপতিত্বে জনসভায় বক্তব্য রাখেন, মনোনয়ন প্রত্যাশী জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আব্দুল হামিদ মাস্টার, উপদেষ্টা আ স ম আব্দুর রহিম পাকন, পাবনা বিএমএ’র সভাপতি ডা. গোলজার হোসেন, জেলা আওয়ামীলীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক মো. বাকিবিল্লাহ, জেলা আইনজীবি সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট শাহ আলম, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক প্রকৌশলী আব্দুল আলীম, ফরিদপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক এবং শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আলী আশরাফুল কবির, ভাঙ্গুড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা আমির হোসেন।

 

জনসভায়  চাটমোহর, ভাঙ্গুড়া ও ফরিদপুর উপজেলার আওয়ামীলীগ এবং সহযোগী অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা অংশ নেন। এর আগে তিন উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন থেকে খন্ড খন্ড মিছিল নিয়ে জনসভায় যোগ দেন তৃণমুলের হাজার হাজার নেতাকর্মী। জনসভা এক পর্যায়ে পরিণত হয় জনসমুদ্রে।

প্রকাশ :  অক্টোবর ৮, ২০১৮ ৬:৩৬ অপরাহ্ণ