+

বগুড়ায় ৭ম শ্রেণীর ছাত্রী সাথী'র রহস্য জনক মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া

সরেজমিনবার্তা | নিউজ টি ১৪ দিন ১৩ ঘন্টা ৪১ সেকেন্ড আগে আপলোড হয়েছে। 2415
...

বগুড়া  প্রতিনিধিঃ বগুড়া সদরের গোকুল ইউনিয়নের পলাশ বাড়ী উত্তর পাড়া গ্রামের শাহ আলমের ৭ম শ্রণীর পড়ুয়া মেয়েরর রহস্য জনক মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।
১২ আগস্ট  (বুধবার) রাত ৮ ঘটিকার সময় বগুড়া সদরের  পলাশ বাড়ী উত্তর পাড়ায় ৭ম শ্রেণীর পিতৃ হারা এক মেয়ের রহস্য জনক মৃত্যু, মা ও সৎ বাবার পক্ষ থেকে আত্ম হত্যা চালিযে যাওয়ার চেষ্টা,  থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করেছে। সাথীকে হত্যা করা হয়েছে না সে আত্ম করেছে বিষয়টি এখনো রহস্যজনক। এলাবাসী দোষী ব্যক্তিদের শাস্তির দাবী।
জানা গেছে, বগুড়া সদরের গোকুল ইউনিয়নের পলাশ বাড়ী উত্তর পাড়া গ্রামের   শাহ আলম তার ৫/৭ বছরের একমাত্র কন্যা সন্তান সাথীকে রেখে মারা যায়। তার মৃত্যুর ২/৩ বছরের মধ্যে তার ু স্ত্রী হাসনা বেগম জয়পুর হাট জেলার কালাই উপজেলার ফরহাদ হোসেন নামে ২ সন্তানের জনকের সাথে প্রেমের  সম্পর্ক গড়ে তুলে তাকে বিয়ে করে। সাথী শিবগঞ্জের একটি বিদ্যালয়ে ৭ম শ্রেণীতে পড়া লেখা করে। সাথীর মা তার পূর্বের স্বামী শাহ আলমের বাড়ীতে তার বর্তমান স্বামী  ফরহাদকে নিয়ে   বসবাস করতে চাইলে প্রতিবেশী ও শাহ  আলমের আত্মীয় স্বজনরা বাধা দেয়৷ তাদের বাধা উপেক্ষা করে হাসনা বেগম বগুড়া সদর থানা ও কোর্টে প্রতিবেশী ও গ্রামের বেশ কযেকজন সাধারণ মানুষের নামে মিথ্যা  মামলা করে। ।  গোকুল ইউপি চেয়ারম্যান সাকাদুল ইসলাম সরকার সবুজ ও ইউপি সদস্য সালামত আলী বিষয়টি সম্পর্কে অবহিত ছিলেন। তারপরও তাদের কথা না শুনে  সদর থানা পুলিশ   অভিযোগের সুত্র ধরে হাসনা ও তার প্রেমিক স্বামীকে গত ৩/৪ মাস পূর্বে শাহ আলমের বাড়ীতে উঠিয়ে  দেয়। প্রতিবেশীরা জানান শাহ আলমের বাড়ীর জায়গা সুকৌশলে বিক্রি করার জন্য হাসনা এখানে আসে। আর  মাঝে মধ্যেই সৎ বাবা ও মা মিলে মেয়েটিকে শাররীরিক ও মানষিক ভাবে টর্চার করে। গত বুধবারও এর ব্যতিক্রম হযনি।  ছোট মেয়েটি এখনও জানেনা আত্ম হত্যা কি?  কিভাবে বা কি কারণে আত্ম হত্যা করা হয়? এলাকাবাসীর ধারণা সাথী(১২) কে তার মা ও সৎ বাবা হত্যা করে আত্ম হত্যার নাটক করছে। তাদেরকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করলেই সাথীর মৃত্যর আসল রহস্য উদঘাটন হবে। এব্যাপারে সদর থানার অফিসার ইনচার্জ  হুমায়ুন কবীরকে অবহিত করলে তিনি ঘটনাস্থলে  দ্রত  পুলিশ পাঠিয়ে দিয়ে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস প্রদান করেন।  তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই মনোয়ার হোসেন লাশের সুরত হাল রিপোর্ট তৈরি করার পর জানান, ডাক্তারী রিপোর্ট এলেই  মৃত্যুর প্রকৃত তথ্য বের হবে। আর কেউ যদি এ ঘটনার সাথে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ ভাবে জড়িত থাকে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর আইন গত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। সাথীর রহস্যজনক মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে, আকাশ বাতকস ভারী হয়েছে, তার খেলার সাথীরা তাকে খুঁজে বেরাচ্ছে, কবে সাথীর রহস্যজনক মৃত্যুর প্রকৃত তথ্য বের হবে? কবে তার ঘাতকেরা শাস্তি পাবে? আশায় প্রহর গুনছে তার আত্মীয় স্বজন ও খেলার সাথীরা।

...
MD. Nur Nobi Rahman(SJB:E077)
Mobile : 01711717015

সম্পাদক ও প্রকাশক
মোহাম্মদ বেলাল হোছাইন ভূঁইয়া
01731 80 80 79
01798 62 56 66

প্রধান কার্যালয় : লেভেল# ৮বি, ফরচুন শপিং মল, মৌচাক, মালিবাগ, ঢাকা - ১২১৯ | ই-মেইল: news.sorejomin@gmail.com , thana.sorejomin@gmail.com

...

©copyright 2013 All Rights Reserved By সরেজমিনবার্তা

Family LAB Hospital
সর্বশেষ সংবাদ