+

নারী ভাইস-চেয়ারম্যান পদে এক বছর পূর্ণ করলেন গোলনাহার

সরেজমিনবার্তা | নিউজ টি ২৩ দিন ২২ ঘন্টা ১৬ সেকেন্ড আগে আপলোড হয়েছে। 819
...

মোহাম্মদ মাকসুদুল হাসান ভূঁইয়া রাহুল,
স্টাফ রিপোর্টারঃ

'পৃথিবীতে যা কিছু মহান সৃষ্টি চির কল্যাণকর, অর্ধেক তার করিয়াছে নারী অর্ধেক তার নর’-জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের বিখ্যাত 'নারী' কবিতার লাইনটির যথার্থতা প্রমাণ করে চলেছেন নারীরা। বিশ্বায়নের এ যুগে ঘরের কাজের পাশাপাশি নারীরা এখন অফিস, আদালত সহ সকল কর্মক্ষেত্রে এমনকি রাজনীতির ময়দানেও পুরুষের পাশাপাশি নিজেদের দক্ষতা সমানতালে প্রমাণ করে যাচ্ছেন। বাংলাদেশের সুদক্ষ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, জার্মানির চ্যান্সেলর এঞ্জেলা মার্কেল, নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডার্নের মতন নারী নেত্রীরা বিশ্ব রাজনৈতিক মঞ্চ দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন।

বর্তমান পৃথিবীর উন্নয়নে নারীর ক্ষমতায়ন ইতিবাচক ও শক্তিশালী ভূমিকা রেখে চলেছে। রাজনীতিতে নারীদের অংশগ্রহণ  নারী ক্ষমতায়নের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ একটি দিক। নিজেদের মেধা ও শ্রমের সমন্বয়ে রাজনৈতিক অঙ্গনে নারীরা উল্লেখযোগ্য অবদান রাখছেন।

স্থানীয় সরকার বিভাগের অন্তর্গত উপজেলা পরিষদের গুরুত্বপূর্ণ একটি পদ নারী ভাইস চেয়ারম্যান। দেশের সুপ্রাচীন জেলা কিশোরগঞ্জের অন্যতম  উপজেলা বাজিতপুর। ঐতিহ্যবাহী এ উপজেলার নারী ভাইস চেয়ারম্যান গোলনাহার। উপজেলাটির নারী ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে সম্প্রতি ১ বছর পূর্ণ করেছেন তিনি।

মঙ্গলবার (১৯ মে, ২০২০) গুলনাহার ফারুক তাঁর ভাইস চেয়ারম্যান পদের প্রথম বছর পূর্ণ করেন। গত এক বছরে তিনি দেশের বিভিন্ন জাতীয় অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেছেন। বাল্যবিবাহ বন্ধ এবং অসহায় নারীদের সেলাই ও বিউটিশিয়ান ট্রেনিংয়ের ব্যবস্থা করেছেন যেনো নারীরা সাবলম্বী  হতে পারেন।

গোলনাহার বলেন, উপজেলা নারী ভাইস-চেয়ারম্যান হিসেবে আমার দায়িত্ব হচ্ছে নারীরা যেনো কোনো সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত না হয় সেটা নিশ্চিত করা। অসহায় নারীরা যেনো স্বাবলম্বী হতে পারে সে লক্ষ্যে সবসময়ই কাজ করে যাবো। আজকে নারীরা পিছিয়ে নেই। 

তিনি বলেন, আমার উপজেলায় বাল্যবিবাহ বন্ধ করার জন্য কাজ করেছি। সমাজে নারী সহিংসতা বন্ধ করার লক্ষ্যে কাজ করছি। তাছাড়া কোনো অসহায় মানুষ যেনো কখনো হয়রানির শিকার না হন সেদিকেও সবসময়ই খেয়াল রাখি। আমি সর্বদা অসহায় মানুষের পাশে থাকবো।

বর্তমান করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় ও জনগণকে সচেতন করতে গুলনাহার নিজ অর্থায়নে বিভিন্ন ইউনিয়নে মাস্ক বিতরণ করেছেন। অসহায় মানুষ, বিশেষ করে যারা সাহায্য চাইতে সংকোচবোধ করেন তাদেরকে যথাসম্ভব খাদ্যসামগ্রী ও নগদ অর্থ উপহার দিয়েছেন তিনি। তাছাড়া মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেয়া ত্রানসামগ্রী বিভিন্ন ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ে চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের সঙ্গে থেকে অসহায় মানুষদের মাঝে সুষম বন্টন কাজে অংশ নেন গোলনাহার।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে গোলনাহার বলেন, বর্তমান সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাকে অন্তরের অন্তস্হল থেকে ধন্যবাদ জানাই। উনি নারীদের কথা চিন্তা করে উপজেলা পরিষদে নারী  নেতৃত্ব সৃষ্টি করে নারীদের স্হান অলংকৃত করেছেন, নারীদের মর্যাদায় আসনে বসিয়েছেন।

উপজেলা পরিষদে নারী ভাইস-চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি দলীয় রাজনৈতিক কর্মসূচিতেও গোলনাহার নিয়মিত অংশ নেন। উনি আওয়ামী লীগের রাজনৈতিক মতাদর্শে বিশ্বাসী। তিনি বাজিতপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক। দলের সকল রাজনৈতিক কর্মসূচিতে গোলনাহারের সরব উপস্থিতি থাকে। তিনি কিশোরগঞ্জ-৫ (বাজিতপুর-নিকলী) আসনের সাংসদ আলহাজ্ব মো. আফজাল হোসেনের অনুসারী।

সাংসদ মো. আফজাল হোসেনের প্রশংসা করে গুলনাহার বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে বর্তমান সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা যে উন্নয়ন করে যাচ্ছেন তারই ধারাবাহিকতায় আমাদের কিশোরগঞ্জ-৫ আসনের সম্মানিত সংসদ সদস্য জনাব আলহাজ্ব মোঃ আফজাল হোসেন এমপি সাহেব বাজিতপুর-নিকলীর উন্নয়ন করে যাচ্ছেন। উনার মতন একজন জনবান্ধব সাংসদ পেয়ে বাজিতপুরবাসী সত্যিই অনেক গর্বিত।

তিনি বলেন, সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন প্রক্রিয়ায় জনগণের প্রত্যক্ষ ভোটে বাজিতপুর উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে আমি নির্বাচিত হওয়ার পেছনে আমার একমাত্র অভিভাবক আলহাজ্ব মোঃ আফজাল হোসেন এমপি সাহেবের অনেক অবদান রয়েছে। রাজনৈতিক অঙ্গনে নারীদের সামনে নানান প্রতিবন্ধকতা আসে৷ রাজনীতির ময়দানে আমি যেনো ভালো ও ইতিবাচক কাজ করে যেতে পারি এজন্য এমপি মহোদয় সবসময়ই আমাকে উৎসাহ যুগিয়েছেন, আমার যে কোনো প্রয়োজনে উনি আমাকে সবরকম সহযোগিতা করেছেন। তাঁর প্রতি আমি এবং আমার পরিবার চিরকৃতজ্ঞ।  

এছাড়া গুলনাহার ফারুককে নির্বাচনে বিজয়ী করার লক্ষ্যে যারা দিনরাত সময় ও শ্রম দিয়ে সহযোগিতা করেছেন, সুষ্ঠু নির্বাচন প্রক্রিয়ায় যাদের প্রত্যক্ষ ভোটে তিনি উপজেলা নারী ভাইস-চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন তাদের সহ বাজিতপুর উপজেলার সকল বাসিন্দার প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন তিনি।

গোলনাহারের স্বামী সৌদি প্রবাসী। স্বামী দেশের বাইরে থাকায় নিজ পরিবারকে তিনি একাই দক্ষভাবে সামলান। এখানেও উনি সফল। ব্যক্তি জীবনে গোললনাহার ৩ সন্তানের জননী। একজন মা হিসেবেও উনার সফলতা চোখে পড়ার মত। তিনি নিজে একজন শিক্ষিত নারী, তাঁর সন্তানদেরও তিনি নিয়ে গেছেন উচ্চ শিক্ষার দোয়ারে। সংসার পরিচালনা ও রাজনৈতিক কর্মসূচিতে অংশগ্রহণের পাশাপাশি তিনি ফারইস্ট ইসলামী লাইফ ইন্সুরেন্স লিমিটেড-এর বাজিতপুর সাংগঠনিক অফিসের ইনচার্জ হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। এখানে তাঁর অধীনে ৬৫ জন কর্মরত রয়েছেন। একজন গৃহিণী, উদ্যোক্তা ও নারী রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব হিসেবে গোলনাহার স্ব-অবস্থানে অনন্য।

উল্লেখ্য, গত বছরের ১৮ এপ্রিল বাজিতপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে অংশ নিয়ে জয়লাভ করেন গোলনাহার। পরবর্তীতে ১৯ মে তিনি আনুষ্ঠানিকভাবে শপথ পাঠ করে নারী ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন।

...
Mohammad Maksudul Hasan Bhuiyan Rahul(SJB:E036)
Mobile : 01711328741

সম্পাদক ও প্রকাশক
মোহাম্মদ বেলাল হোছাইন ভূঁইয়া
01731 80 80 79
01798 62 56 66

প্রধান কার্যালয় : লেভেল# ৮বি, ফরচুন শপিং মল, মৌচাক, মালিবাগ, ঢাকা - ১২১৯ | ই-মেইল: news.sorejomin@gmail.com , thana.sorejomin@gmail.com

...

©copyright 2013 All Rights Reserved By সরেজমিনবার্তা

Family LAB Hospital
সর্বশেষ সংবাদ