বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ১০:৪৪ অপরাহ্ন

আমিনুলকে বাঁচাতে আর মাত্র ১০ লাখ টাকা প্রয়োজন

নিউজ ডেস্ক :
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
  • ৭৫ বার পঠিত

আমিনুল ইসলাম Paroxysmal nocturnal hemoglobinuria (PNH) নামক বিরল রোগে আক্রান্ত। তার শরীরের রেড ব্লাড সেলের উৎপাদন ক্ষমতা ক্রমাগত হারিয়ে যাচ্ছে। চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন তার হাতে সময় আছে ছয় মাস। যার তিন মাস ইতোমধ্যে শেষ হয়েছে। তবে আশার কথা হলো, এখনও চিকিৎসার মাধ্যমে তার সুস্থ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে প্রায় ৯৫%।

আমিনুল ইসলাম বরিশাল জেলার আগৈলঝারা উপজেলার গৌহার গ্রামের মো. হারুন অর রশিদের মেঝ ছেলে। তিনি ২০০৭ সালে ছয়গ্রাম মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে এসএসসি ও ২০০৯ সালে বরিশাল তিতুমীর কলেজ থেকে এইচএসসি, ঢাকা কলেজ থেকে অনার্স ও মাস্টার্স শেষ করে বর্তমানে একটা আই.টি ফার্মে ম্যানেজার হিসেবে কর্তব্যরত আছেন।

চার ভাইবোনের মধ্যে আমিনুল মেঝ। তার বাবা ব্রেইন স্ট্রোক করে শয্যাশায়ী। আমিনুলের উপার্জনের উপরেই নির্ভরশীল ছোট দুই ভাইবোনের লেখাপড়াসহ পরিবারের অন্যান্য খরচ। ব্যক্তি জীবনে বিবাহিত আমিনুলের ছয় মাসের একটি শিশুকন্যা রয়েছে। এর মধ্যে তার এই অসুস্থতা পরিবারে ডেকে এনেছে মহাসংকট।

আমিনুলের চিকিৎসার জন্য প্রয়োজন ছিল প্রায় চল্লিশ লাখ টাকা। যা কি-না আমিনুলের পরিবারের পক্ষে বহন করা প্রায় অসম্ভব। এত টাকা খরচ করে চিকিৎসা করার সামর্থ নেই জেনে ডাক্তারের বেঁধে দেওয়া ৬ মাস সময়ের ৩ মাস কাটিয়ে দিয়েছিলেন নিভৃতেই।

হঠাৎ আশার আলো জ্বলে উঠলো আমিনুলের ব্যাচমেটদের আন্তরিক প্রচেষ্টায়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে এসএসসি ২০০৭ ও এইচএসসি ২০০৯ নামের গ্রুপটি তার পাশে দাঁড়ায়। গ্রুপের সদস্যদের ব্যক্তিগত প্রচেষ্টায় ইতোমধ্যে প্রায় ত্রিশ লাখ টাকা সংগ্রহ করা সম্ভব হয়েছে। প্রয়োজন আরও প্রায় দশ লাখ টাকা। আপনার একটুখানি সাহায্য হতে পারে আমিনুলের বেঁচে থাকার কারণ। আমিনুলের ছোট্ট মেয়েটি তার বাবাকে ফিরে পেতে পারে। আসুন, আমিনুলের পাশে দাঁড়াই

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2019 sorejominbarta.Com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com