চাঁদেরও কলঙ্ক থাকে, আমাদের ভুলত্রুটি আছে

চাঁদেরও কলঙ্ক থাকে, আমাদের ভুলত্রুটি আছে

নিজস্ব প্রতিবেদক :

বর্তমান ক্ষমতাসীন সরকারের উন্নয়নকাজ জনগণের চোখের সামনে দিবালোকের মতো পরিষ্কার বলে দাবি করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘চাঁদেরও কলঙ্ক থাকে, আওয়ামী লীগ একটা সরকার। আমাদের ভুলত্রুটি কিছু আছে।’

আজ সোমবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে শ্রীনগর উপজেলা বাজার এলাকায় বেইলি ব্রিজের কাজ পরিদর্শন শেষে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বিএনপির রাজনীতি নেতিবাচক। ভুলের চোরাবালিতে আটকে গেছে। নয় বছরে যারা আন্দোলন করতে পারেনি, বাকি নয় মাসে তারা আন্দোলন করবে—এটা কেউই বিশ্বাস করবে না। বিএনপির অতীতের যে রাজনীতি, তাদের যে সহিংসতার রাজনীতি, এটি জনগণ প্রত্যাখ্যান করেছেন।’

‘তারা এখন যতই আন্দোলনের ডাক দেবে, জনগণ তাতে সাড়ে দেবে না। আসন্ন নির্বাচনের আগে তারা যে আন্দোলন করবে, তা জনগণ ও তাদের দলীয় নেতাকর্মীরা বিশ্বাস করবে না। দেশের মানুষ তাদের আন্দোলনে নয় বছরে সাড়া দেয়নি, নয় মাসেও দেবে না। বিএনপির রাজনীতি এখন বারে বারে ভাঙা রেকর্ড বাজানো।’

চাঁদপুর, ঠাকুরগাঁওসহ সারা দেশে আওয়ামী লীগের বিভিন্ন জনসভায় জনসমাগমের উদাহরণ দিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘জনগণ আওয়ামী লীগকেই ভোট দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে।’

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘জনগণ সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে এবং তারা জানে আওয়ামী লীগ সরকার এলে দেশে উন্নয়ন হবে। সড়ক যোগাযোগব্যবস্থার উন্নয়ন এবং ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ কোনো আমলেই হয় নাই। আমাদের ভুলত্রুটি হলে তা সংশোধনের মানসিকতা আমাদের আছে। চাঁদের মধ্যেও কলঙ্ক থাকে, আওয়ামী লীগ একটা সরকার। আমাদের ভুলত্রুটি কিছু আছে। আমাদের কাজ জনগণের কাছে দিবালোকের মতো পরিষ্কার।’

‘পদ্মা সেতুসহ সারা দেশে আমাদের উন্নয়নমূলক কাজ দৃশ্যমান বাস্তবতা। মানুষ চোখের সামনে উন্নয়ন দেখছে। বিএনপি বলুক কী কাজ তাদের আছে, যা দেখে জনগণ তাদের নির্বাচনে জয়ী করবে। নির্বাচনে আসা-না আসা বিএনপির অধিকার। সরকারের কোনো দয়া নয় । গণতান্ত্রিক অধিকার কোনো দয়া নয়। নিজেদের অধিকার তারা নিজেরাই প্রয়োগ করবে। আসা-না আসা নিজস্ব সিদ্ধান্তের ব্যাপার।’

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী আরো বলেন, ‘মুন্সীগঞ্জের মানুষের দুর্ভাগ্য অতীতে এখানে অনেকেই ক্ষমতায় ছিল, এখানে প্রায় ১০০টি বেইলি ব্রিজ ছিল। শেখ হাসিনার সরকারের আমলে মুন্সীগঞ্জে অনেক বেইলি ব্রিজের কাজ ধরেছি। অন্ধের মতো করে ফেলেছি। বর্তমানে ২৯টি ব্রিজের নির্মাণকাজ চলমান আছে। সামনের বছর বাকি যেগুলো আছে, সেগুলোর কাজ চলমান আছে। দুই অর্থবছরে এখানকার সব বেইলি ব্রিজকে কংক্রিটে নিয়ে এসেছি।’

ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, ‘খালেদা জিয়ার গ্রেপ্তারের পর তিনি যখন কারাদণ্ড পেয়ে কারাগারে গেলেন, বিএনপি তখন ভেবেছিল সারা দেশে আন্দোলনের জোয়ার আসবে। কিন্তু কোথাও কোনো আন্দোলন হয়নি। খালেদা জিয়া যখন জেলে গেলেন, সে সময় তাঁরা আন্দোলন করতে পারেননি। নির্বাচন সামনে রেখে জনগণ যখন নির্বাচনের মুডে, তখন আন্দোলনের ডাকে জনগণ সাড়া দেবে—এটা দুঃস্বপ্নের নামান্তর।’

Leave a reply

Minimum length: 20 characters ::

More News...

Fatal error: Call to undefined function tie_post_class() in /var/sites/s/sorejominbarta.com/public_html/wp-content/themes/bdsangbad_magazine_themes/includes/more-news.php on line 40